• শিরোনাম

    ২৪ এপ্রিল মহাকাশে ভাসবে এক টুকরো বাংলাদেশ;কী সুবিধা পাবে দেশবাসী

    অনলাইন ডেস্ক : | রবিবার, ০৮ এপ্রিল ২০১৮

    ২৪ এপ্রিল মহাকাশে ভাসবে এক টুকরো বাংলাদেশ;কী সুবিধা পাবে দেশবাসী

    দেশজুড়ে চলছে উৎসব প্রস্তুতি। শেষ হয়েছে দেশের প্রথম কৃত্রিম উপগ্রহ ‘বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১’ এর নির্মাণ কাজ। প্রায় তিন হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত এ উপগ্রহটি ফ্লোরিডার ক্যাপ ক্যানাভেরালের স্পেসএক্স থেকে ফ্যালকন-৯ রকেটের মাধ্যমে মহাকাশে উৎক্ষেপণ করা হবে। এর মাধ্যমে একদিকে যেমন নিজস্ব স্যাটেলাইটের অধিকারী বিশ্বের ৫৭তম দেশ হিসেবে বাংলাদেশের আত্মপ্রকাশ ঘটবে অন্যদিকে মহাকাশে ভাসবে এক টুকরো বাংলাদেশ। জানা গেছে, আগামী ২৪ এপ্রিল উপগ্রহটি উৎক্ষেপণ করা হবে। যদিও আবহাওয়াসহ বিশেষ কারণে তা পরিবর্তন হতে পারে। তবে উৎক্ষেপণ তারিখ পরিবর্তনের আশঙ্কা নেই বললেই চলে।

    জানা গেছে, ‘বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১’ এর সঙ্গে শুরু থেকে যুক্ত থাকায় বর্তমান ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বারের বদলে অনুষ্ঠানে যোগ দিতে তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিমের নেতৃত্বে ২২ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল আগামী ২১ এপ্রিল চার দিনের সফরে যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডা যাচ্ছেন। সে অনুযায়ী আশা করা হচ্ছে, সফর সময়ের শেষদিন অর্থাৎ ২৪ এপ্রিলেই উপগ্রহটি মহাকাশে উৎক্ষেপণ সম্পন্ন হবে। সরাসরি উৎক্ষেপণ অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধু কন্যা ও দেশরত্ন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উপস্থিত না থাকলেও ঢাকায় তিনি সুইচ টিপে স্যাটেলাইট উৎক্ষেপণের উদ্বোধন করবেন। একই সময় ফ্লোরিডায় উৎক্ষেপণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন প্রধানমন্ত্রীর তথ্যপ্রযুক্তি উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়।

    বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রক সংস্থার (বিটিআরসি) চেয়ারম্যান শাহজাহান মাহমুদ এসব তথ্য উল্লেখ করে জানান, ফ্রান্সের থেলেস এলেনিয়া স্পেস নামের প্রতিষ্ঠানটি বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ নির্মাণকাজ সম্পন্ন করেছে এবং স্যাটেলাইটটি বাংলাদেশ সরকারের কাছে হস্তান্তরও করা হয়েছে। এই স্যাটেলাইটের কাঠামো তৈরি, উৎক্ষেপণ, ভূমি ও মহাকাশের নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা এবং ভূ-স্তরে দুটি স্টেশন পরিচালনার দায়িত্বও নিয়েছে ওই সংস্থাটি।

    এদিকে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ নিয়ন্ত্রণের জন্য গাজীপুর ও রাঙ্গামাটিতে গ্রাউন্ড স্টেশন তৈরি করা হয়েছে। স্যাটেলাইটিতে থাকছে ৪০টি ট্রান্সপন্ডার। এগুলোর মধ্যে প্রাথমিকভাবে ২০টি ব্যবহার করবে বাংলাদেশ। অন্যগুলো ভাড়া দেওয়া হবে। এই কৃত্রিম উপগ্রহ স্যাটেলাইট টেলিভিশন চ্যানেল, ইন্টারনেট সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান, ভি-স্যাট ও বেতারসহ ৪০ ধরনের সেবা দেবে। প্রাকৃতিক দুর্যোগ টেরিস্ট্রিয়াল অবকাঠামো ক্ষতিগ্রস্ত হলে সারা দেশে নিরবচ্ছিন্ন যোগাযোগ ব্যবস্থা বহাল থাকা, পরিবেশ যোগাযোগ মাধ্যম হিসেবে ই-সেবা নিশ্চিত করবে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট।

    এ উপলক্ষে দেশজুড়ে চলছে উৎসব আয়োজনের প্রস্তুতি। দেশের সবকটি জেলা, উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে এ প্রাপ্তি ছড়িয়ে দিতে হাতে নেয়া হয়েছে বিভিন্ন পরিকল্পনা। জানা গেছে, উৎক্ষেপণ অনুষ্ঠানটি অনলাইনে সম্প্রচার করা হবে। এছাড়া বিটিভিতেও অনুষ্ঠানটি সম্প্রচার করা হতে পারে বলে জানা গেছে।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

  • ফেসবুকে onusondhanbd24.com